আন্তর্জাতিক

ভারতে বিতর্কিত ‘ধর্মগুরু’ রামরহিম সিংয়ের যাবজ্জীবন

ভারতে হত্যা মামলায় বিতর্কিত ‘ধর্মগুরু’ গুরমিত রামরহিম সিংসহ ৫ জনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। দুই দশক আগে নিজের ম্যানেজার রঞ্জিত সিংকে হত্যার ঘটনায় এই সাজা ঘোষণা করে দেশটির কেন্দ্রীয় তদন্ত সংস্থা-সিবিআই আদালত।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি জানিয়েছে, ২০০২ সালের ১০ জুলাই খুন হয়েছিলেন ম্যানেজার রঞ্জিত সিং। গুরমিত সিংয়ের আস্তানা ডেরা সাচা সৌদার প্রধান গুরমিত রামরহিমের অত্যন্ত ঘনিষ্ঠ ছিলেন রঞ্জিত। কিন্তু পরবর্তীকালে রামরহিমের সঙ্গে তার সম্পর্কের অবনতি ঘটে। রামরহিম নারীদের যৌন নির্যাতন চালাতেন।

সেই বিষয়টি প্রকাশ্যে এনেছিলেন রঞ্জিত। রামরহিমের বিরুদ্ধে নারীদের যৌন নির্যাতনের অভিযোগ করে বহু বেনামি চিঠি সে সময় ছড়িয়ে পড়েছিল। অনুমান করা হয়, ওই কাজ ছিল রঞ্জিতের। সে কারণেই রঞ্জিতকে গুলি করে হত্যা করা হয়।

সিবিআই চার্জশিটে জানিয়েছে, ডেরা সাচা সৌদার প্রধান গুরমিত রামরহিমের সন্দেহ ছিল, বেনামি চিঠিগুলি ছড়িয়ে দিয়েছিলেন রঞ্জিত। সে কারণেই তাকে খুনের চক্রান্ত করা হয়। দীর্ঘ উনিশ বছর মামলা চলার পর শেষ পর্যন্ত সোমবার সেই মামলার নিষ্পত্তি হল।

গুরমিত ছাড়াও আর যে চারজনের যাবজ্জীবন হয়েছে তারা হলেন: যশবীর সিং, অবতার সিং, কিষানলাল এবং সবদিল। হরিয়ানার পঞ্চকুলার বিশেষ সিবিআই আদালত যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের পাশাপাশি গুরমিতের ৩১ লাখ এবং তার সহ-অপরাধীদের ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা করেছে। প্রায় দু’দশকের পুরনো এই মামলার ষষ্ঠ অভিযুক্ত কিছু দিন আগে মারা গেছেন।

রোহতকের সুনারিয়া জেলে বন্দি ধর্মগুরুকে ভিডিয়ো কনফারেন্স শুনানিতেও হাজির করানো হয়েছিল। সহিংসতার আশঙ্কায় রোহতক, সিরসা-সহ বিভিন্ন এলাকায় কড়া পুলিশি নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছিল।

বিশেষ আদালতের বিচারক এ দিন রায় ঘোষণা করতে গিয়ে বলেন, যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ছাড়াও রামরহিমকে ৩১ লাখ টাকা জরিমানা দিতে হবে। সিবিআই আদালত রঞ্জিত সিং হত্যা মামলায় গুরমিত রামরহিম সিংসহ ৫ অভিযুক্তকে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০২ ধারায় আগেই দোষী সাব্যস্ত করেছিল।

সোমবার বিচারক শুধু সাজা ঘোষণা করেন। দীর্ঘ ১৯ বছর ধরে মামলা চলার কারণে এক সময় হতাশ হয়ে পড়েছিলেন রঞ্জিত সিংয়ের ছেলে জগবীর সিং। একসময় জগবীর এই মামলা পাঞ্জাব, হরিয়ানা, চণ্ডীগড়ের কোনও সিবিআই আদালতে সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার আবেদন করেছিলেন। কিন্তু হরিয়ানা হাইকোর্ট সেই আর্জি খারিজ করে দিয়েছিল। শেষ পর্যন্ত অবশ্য বিচার পেলেন রঞ্জিত সিংয়ের ছেলে। সাজা হল রামরহিমের।

২০১৭ সালের অগস্ট মাসে আশ্রমের মধ্যে দুই শিষ্যাকে ধর্ষণ এবং এক সাংবাদিককে খুনের মামলায় এখন ২০ বছরের কারাদণ্ড ভোগ করছেন গুরমিত সিং।

সংশ্লিষ্ঠ খবরগুলো

Back to top button